myUpchar प्लस+ के साथ पूरेे परिवार के हेल्थ खर्च पर भारी बचत

অ্যানাফাইল্যাক্টিক শক কি?

অ্যানাফাইল্যাক্সিস একটি মারাত্মক অ্যালার্জিঘটিত প্রতিক্রিয়া যা প্রাণঘাতী হতে পারে এবং এটি যেসব অ্যালার্জিগুলির সংস্পর্শে আসার সঙ্গে সঙ্গেই এটি ঘটে তার মধ্যে চীনাবাদাম অথবা মৌমাছির কামড় রয়েছে। এই বিশেষ অবস্থায়, যখন একজন ব্যক্তি অ্যালার্জির সংস্পর্শে আসে তখন তার রোগ প্রতিরোধক প্রক্রিয়া সক্রিয় হয়ে যায়, যার প্রতিক্রিয়ায় প্রচুর পরিমাণে রাসায়নিক নির্গমণ হতে থাকে। এর কারণে হঠাৎ করে রক্ত চাপ কমে যায় (রক্তের নিম্নচাপ বা হাইপোটেনশন), এবং তার ফলে শরীরে বায়ু চলাচলের পথ সংকুচিত হয়ে যায় এবং শ্বাসগ্রহণে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হয়। যদি সময়মতো চিকিৎসা না করা হয়, তাহলে এটি শক বা পক্ষাঘাতের পর্যায়ে চলে যেতে পারে যাকে অ্যানাফাইল্যাক্টিক শক বলা হয়।

এটির প্রধান লক্ষণ এবং উপসর্গগুলি কি কি?

অ্যানাফাইল্যাক্টিক শকের প্রধান লক্ষণ এবং উপসর্গগুলির মধ্যে রয়েছে:

  • নিম্ন রক্তচাপ
  • মাথা ঘোরা বা সংজ্ঞানাশ হয়ে যাওয়া
  • দুর্বল এবং দ্রুত নাড়ির গতি
  • ডায়রিয়া, বমি বমি ভাব এবং/অথবা বমি
  • শরীরে বায়ুচলাচলের পথে প্রতিবন্ধকতা এবং তার সঙ্গে জিভ এবং গলায় ফোলাভাব যার ফলে বুকে শব্দ সৃষ্টি হওয়া ( নিঃশ্বাস নেওয়ার সময় শিস দেওয়ার মতো আওয়াজ বা ঘড়ঘড় শব্দ) এবং নিঃশ্বাস নিতে কষ্ট হয়  
  • আমবাতের (কিছু অ্যালার্জি অথবা কোনো অজানা কারণে ত্বকে প্রতিক্রিয়া) মতো ত্বকের প্রতিক্রিয়া যার কারণে চুলকানি যুক্ত, ফোলা বা লালবর্ণের ত্বক দেখা দিতে পারে

অ্যানাফাইল্যাক্টিক শকের প্রধান কারণগুলি কি কি?

বাইরের পদার্থগুলির বিরুদ্ধে শরীরের রোগ প্রতিরোধ প্রক্রিয়া যে অ্যান্টিবডি তৈরী করে তা খুবই গুরুত্বপূর্ণ কারণ তারা শরীরকে কোনো রকম ক্ষতি থেকে রক্ষা করে। যাইহোক, কিছু ব্যক্তির মধ্যে, অ্যালার্জির প্রতিক্রিয়া সাধারণত কিছু ক্ষতিহীন পদার্থ থেকেও হয়ে থাকে কারণ তাদের শরীরের রোগ প্রতিরোধ প্রক্রিয়া ওই পদার্থগুলির উপর অকারণ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করে। সাধারণত, অ্যালার্জি প্রতিক্রিয়াগুলি প্রাণঘাতক হয় না, কিন্তু, মারাত্মক পর্যায়ে, এগুলি অ্যানাফাইল্যাক্সিসের কারণ হতে পারে।

অ্যানাফাইল্যাক্সিস হওয়ার সাধারণ কারণগুলির মধ্যে রয়েছে:

  • বিভিন্ন ধরণের ওষুধ যার মধ্যে রয়েছে ওষুধের দোকান থেকে বলে কিনে আনা ব্যথা কমানোর ওষুধ, অ্যান্টিবায়োটিক, অ্যাসপিরিন এবং আরো অন্যান্য ওষুধ
  • ইমেজিং পরীক্ষার সময় শিরায় প্রয়োগের জন্য (আই ভি) কনট্রাস্ট ডাই বা রঞ্জক পদার্থ ব্যবহার
  • মৌমাছি, একধরণের লাল রঙের বিষাক্ত পিঁপড়ে, বোলতা, ভীমরুল, ভ্রমরের কামড়
  • তরু ক্ষীর বা ল্যাটেক্স

শিশুদের মধ্যে অ্যানাফাইল্যাক্সিসের সাধারণ কারণগুলির মধ্যে রয়েছে:

খাবারে অ্যালাৰ্জি, যার মধ্যে আছে

  • দুধ
  • মাছ এবং খোলা সহ মাছ
  • চীনাবাদাম
  • গাছ বাদাম

অ্যানাফাইল্যাক্সিসের অস্বাভাবিক কারণগুলির মধ্যে রয়েছে

  • অ্যারোবিক ব্যায়াম, যেমন জগিং
  • কিছু নির্দিষ্ট খাবার খাওয়ার পরে ব্যায়াম করা
  • গরম, আর্দ্র অথবা ঠান্ডা আবহাওয়ায় ব্যায়াম করা
  • কখনো কখনো অ্যানাফাইল্যাক্সিসের কারণ অজানা থাকে; একে বলা হয় ইডিওপ্যাথিক অ্যানাফাইল্যাক্সিস।

এটি কিভাবে নির্ণয়  এবং চিকিৎসা করা হয়?

ডাক্তার প্রথমে একটি সাধারণ চিকিৎসাগত ইতিহাস জানতে চাইবেন এবং আপনাকে বিস্তারিত ভাবে জিজ্ঞাসা করা হবে যে আপনার আগে কখনো অ্যালাৰ্জির প্রতিক্রিয়া হয়েছে কিনা। অ্যালাৰ্জির উৎস বুঝতে, আপনাকে প্রতিটি অ্যালাৰ্জির উৎস সম্পর্কে আলাদা করে জিজ্ঞাসা করা হবে যার মধ্যে উপরে উল্লিখিত কারণগুলিও রয়েছে। এছাড়াও, নির্ণয়টি নিশ্চিত করার জন্য, রক্ত পরীক্ষা করতে দেওয়া হয় যা একটি এনজাইম বা উৎসেচকের (ট্রিপটেজ) পরিমাপে সাহায্য করবে; এর মাত্রা অ্যানাফাইল্যাক্সিস হওয়ার তিন ঘন্টা পর পর্যন্ত বেড়ে থাকা স্বাভাবিক। অ্যালাৰ্জি ট্রিগার টেস্টের মধ্যে রয়েছে বিভিন্ন ধরণের ত্বকের বা রক্তের পরীক্ষা।

অ্যানাফাইল্যাক্টিক রোগে আক্রান্ত হওয়ার পরে, তাৎক্ষনিক এবং দ্রুত পদক্ষেপ নেওয়া উচিত যাতে উপসর্গগুলির অবনতি আটকানো বা রোধ করা যায়। নাড়ির গতি দেখা দরকার (দুর্বল নাকি দ্রুত), ত্বক (ফ্যাকাশে, শীতল নাকি  ভিজে), শ্বাসকষ্ট হচ্ছে কিনা, বিহ্বলতা অথবা সংজ্ঞানাশ দেখা দিচ্ছে কিনা, এগুলির অবিলম্বে ব্যবস্থা নেওয়া প্রয়োজন। যদি কোনো ব্যক্তির শ্বাসক্রিয়া বা হৃদস্পন্দন বন্ধ হয়ে যায়, তাহলে তাকে ওষুধের সঙ্গে কার্ডিওপালমোনারী রিসাসিটেশন (সি পি আর) দেওয়া হয়, যার মধ্যে রয়েছে:

  • এপিনেফরিন (অ্যাড্রেনালাইন) যা শরীরে অ্যালার্জির প্রতিক্রিয়াকে কমাতে সাহায্য করে
  • নিঃশ্বাসের কষ্ট লাঘব করার জন্য অক্সিজেন দেওয়া হয়
  • শরীরে বায়ু চলাচলের পথে হওয়া সমস্যাগুলি যাতে কমে যায় তার জন্য ইন্ট্রাভেনাস বা শিরাতে তরল ওষুধ (আই ভি) প্রয়োগ করা হয়
  • অ্যান্টিহিস্টামাইন এবং কর্টিশন দেওয়া হয়; যাতে ঠিক মতো নিঃশ্বাস নিতে পারে
  • নিঃশ্বাসের উপসর্গগুলি থেকে উপশমের জন্য অ্যালবুটেরল বা অন্যান্য বিটা-অ্যাগনিস্ট ব্যবহার করা হয়
  • জরুরী অবস্থায়, রোগীকে শুইয়ে দিয়ে তার পা উঁচু করে তুলে ধরতে হবে এবং তাকে অটো ইনজেক্টর (একটি সিরিঞ্জ যার মধ্যে সুঁচ রয়েছে এবং যার দ্বারা এক ডোজ ওষুধ দেওয়া যাবে) ব্যবহার করে এপিনেফরিন ইনজেকশন দেওয়া হয়। এর ফলে অ্যানাফাইল্যাক্টিক শকের উপসর্গগুলি খারাপ পর্যায় পৌঁছতে পারে না।
  • দীর্ঘসময় ধরে যে চিকিৎসাগুলি করা হয় তার মধ্যে রয়েছে ইমিউনোথেরাপি যার মধ্যে আছে অনেকগুলি অ্যালার্জি শট এবং যেগুলি পোকার কামড়ের কারণে হওয়া অ্যানাফাইল্যাক্সিসের ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয় এবং এর ফলে শরীরে অ্যালার্জির প্রতিক্রিয়া কমে যায়। এটি ভবিষ্যতে মারাত্মক প্রতিক্রিয়ার থেকে বাঁচতে সাহায্য করে।
  1. অ্যানাফাইল্যাক্টিক শক জন্য ঔষধ

অ্যানাফাইল্যাক্টিক শক জন্য ঔষধ

অ্যানাফাইল্যাক্টিক শক के लिए बहुत दवाइयां उपलब्ध हैं। नीचे यह सारी दवाइयां दी गयी हैं। लेकिन ध्यान रहे कि डॉक्टर से सलाह किये बिना आप कृपया कोई भी दवाई न लें। बिना डॉक्टर की सलाह से दवाई लेने से आपकी सेहत को गंभीर नुक्सान हो सकता है।

Medicine NamePack SizePrice (Rs.)
DefwaveDefwave 6 Mg Tablet91.0
DelzyDelzy 6 Mg Tablet75.0
Dephen TabletDephen Tablet0.0
D FlazD Flaz 6 Mg Tablet80.0
DzspinDzspin Tablet79.0
Emsolone DEmsolone D 6 Mg Tablet50.0
FlazaFlaza 30 Mg Tablet390.0
Flazo(Regalia)Flazo Syrup60.0
GladcortGladcort 6 Tablet99.0
Monocortil D30Monocortil D30 30 Mg Tablet80.0
NudeflaNudefla Tablet78.0
OnlicortOnlicort Tablet45.0
RexcortRexcort 6 Mg Tablet90.0
RzcortRzcort 6 Mg Tablet48.0
TenflayTenflay 6 Mg Tablet48.0
ZicortZicort 6 Mg Tablet89.0
Defcort TmDefcort Tm 0.4 Mg/30 Mg Tablet531.0
Tamfil STamfil S Capsule551.0
AdrelinAdrelin Injection80.0
Adrenaline Tartrate InjectionAdrenaline Tartrate Injection2.0
DianoraDianora 1 Mg Injection40.0
EnatrateEnatrate Injection14.0
EpitrateEpitrate 1 Mg Injection15.0

আপনার অথবা আপনার পরিবারে কারোর কি এই রোগ আছে? দয়া করে একটা সমীক্ষা করুন এবং অন্যদের সাহায্য করুন।

और पढ़ें ...