চোখের সংক্রমণ (চোখের ইনফেকশন) - Eye Infections in Bengali

Dr. Ajay Mohan (AIIMS)MBBS

December 28, 2018

July 31, 2020

চোখের সংক্রমণ
চোখের সংক্রমণ

চোখের সংক্রমণ কি?

চোখের সংক্রমণ খুব সাধারণ এবং প্রধান একটি অস্বস্তির কারণ। ব্যাকটেরিয়া, ভাইরাস এবং ছত্রাক প্রভৃতি চোখের সংক্রমণ তৈরী করতে সক্ষম, যার ফলে লালচে ভাব, ফুলে যাওয়া, চুলকানি, স্রাব এবং চোখের মধ্যে ব্যথা হয়। সবচেয়ে সাধারণভাবে হওয়া চোখের সংক্রমণগুলির মধ্যে একটি হল কনজাংটিভাইটিস, যা সাধারণত একটি ভাইরাল সংক্রমণ।

এর প্রধান লক্ষণ এবং উপসর্গগুলি কি কি ?

সাধারণ চোখের সংক্রমণের সাথে যুক্ত লক্ষণ এবং উপসর্গগুলি হল:

  • কনজাংটিভাইটিস এবং ব্লেফারাইটিস:
    • ফোলা চোখ।
    • ব্যথা।
    • ফোলাভাব।
    • চোখ থেকে জল পরা।
  • ব্যাকটেরিয়াল কেরাটিটিস:
    • ব্যথা।
    • লালচে ভাব।
    • স্রাব পরা।
    • আলোকাতঙ্ক রোগ।
    • চোখ থেকে জল পরা।
    • দৃষ্টিশক্তি কমে যাওয়া এবং অস্পষ্ট দৃষ্টি।
    • কর্নিয়ার আলসার
  • হার্পিস সিমপ্লেক্স ভাইরাস কেরাটিটিস:
    • ব্যথা।
    • দৃষ্টিশক্তি কমে যাওয়া এবং অস্পষ্ট দৃষ্টি।
    • চোখ থেকে জল পরা।
    • স্রাব পরা।
    • আলসার।
    • চুলকানি।
    • আলোকাতঙ্ক রোগ।
  • এন্ডোফথালমাইটিস:
    • ব্যথা।
    • দৃষ্টিশক্তির হ্রাস।
    • লালচে ভাব।
  • আঞ্জনি:
    • ব্যথা।
    • ডেলার উপস্থিতি যা পূঁযে ভর্তি হতে পারে।
    • লাল এবং জলপূর্ণ চোখের উপস্থিতি।

এর প্রধান কারণগুলি কি কি ?

চোখের সংক্রমণের কারণগুলি প্রত্যেক সংক্রমণের ক্ষেত্রে বিভিন্ন হয় এবং এতে অন্তর্ভুক্ত থাকতে পারে:

  • কনজাংটিভাইটিস: এটি প্রায়ই কনজাংটিভাইটিসে আক্রান্ত একজন ব্যক্তির সাথে সরাসরি যোগাযোগের দ্বারা হয়।
  • ব্যাকটেরিয়াল কেরাটিটিস: এটি প্রায়ই কন্ট্যাক্ট লেন্স পরা বা আঘাতের ফলে হয়।
  • হার্পিস সিমপ্লেক্স ভাইরাস কেরাটিটিস : এর কারণ হার্পিস সিমপ্লেক্স ভাইরাস।
  • এন্ডোফথালমাইটিস: এটি একটি জ্বালা করা বা ফুলে যাওয়া যা মাইক্রোবিয়াল সংক্রমণের কারণে হয়। এটা প্রায়ই চোখের সার্জারি, আঘাত এবং ইন্ট্রাভিট্রিয়াল (চোখের ভিতরে) ইনজেকশনের পরে হয়।

এটি কিভাবে নির্ণয় এবং চিকিৎসা করা হয়?

চোখের সংক্রমণ নির্ণয় করা হয় মেডিক্যাল বিবরণ এবং সতর্কভাবে শারীরিক পরীক্ষার উপর ভিত্তি করে।

একজন ওফথ্যাল্মোলজিস্ট (চোখের ডাক্তার) স্লিট-ল্যাম্প মাইক্রোস্কোপ ব্যবহার করে আপনার চোখের পরীক্ষা করতে পারেন।

অন্তর্ভুক্ত অনুসন্ধানগুলি:

  • কর্নিয়া বা কনজাংটিভা থেকে ঘর্ষনের অনুশীলন।
  • নিচের কনজাংটিভাল কোষ বা চোখের পাতা থেকে স্রাব নির্গমণের অনুশীলন।
  • কর্ণিয়ার বায়োপসি।

চিকিৎসা সংক্রমণের ধরন, উপসর্গ এবং প্রবলতার উপর নির্ভর করে। সাধারণভাবে দেখা চোখের অবস্থার জন্য কিছু চিকিৎসা অনুসরণ করুন:

  • আপনার ডাক্তার ভাইরাল কনজাংটিভাইটিসের ক্ষেত্রে অ্যান্টিভাইরাল ড্রপ বা জেল নির্ধারণ করতে পারেন। ব্যাকটেরিয়াল কনজাংটিভাইটিসের জন্য ওরাল অ্যন্টিবায়োটিক এজেন্টের প্রয়োজন হবে।
  • ব্যাকটেরিয়াল কেরাটিটিসের জন্য ক্লোরামফেনিকোল হল সর্বাধিক নির্দেশিত ওষুধ।
  • হার্পিস সিমপ্লেক্স কেরাটিটিসে ওরাল (মৌখিক) অ্যান্টিভাইরাস এজেন্ট এবং সাময়িক স্টেরয়েডগুলি দিয়ে চিকিৎসা করা হয়।
  • এন্ডোফথালমাইটিসে ওরাল (মৌখিক) অ্যান্টিবায়োটিকগুলির সাথে ভ্যাট্রিয়াল ইনজেকশন বা ইন্ট্রাভেনাস (শিরার ভিতরে) ইনজেকশনের প্রয়োজন হতে পারে।
  • প্যারাসিটামল বা অন্যান্য অ্যানালজেসিক্সের (ব্যথা উপশমকারী) সাথে একটি আঞ্জনির চিকিৎসার ঔপসর্গিক উপশম জড়িত। কয়েক মিনিটের জন্য আপনার চোখের উপর একটি উষ্ণ কাপড় ধরে রাখলে তা ফোলা কমাতে সাহায্য করে।
  • আপনার ওফথ্যাল্মোলজিস্ট (চোখের ডাক্তার) আপনার সংক্রমণ সম্পূর্ণরূপে ঠিক না হওয়া পর্যন্ত আপনাকে কন্ট্যাক্ট লেন্স এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেবেন।



তথ্যসূত্র

  1. MedlinePlus Medical Encyclopedia: US National Library of Medicine; Eye Infections
  2. NPS MedicineWise. Common eye infections. Australia. [internet].
  3. Healthdirect Australia. Eye infections. Australian government: Department of Health
  4. National Health Service [Internet]. UK; Stye
  5. Center for Disease Control and Prevention [internet], Atlanta (GA): US Department of Health and Human Services; About Fungal Eye Infections

চোখের সংক্রমণ (চোখের ইনফেকশন) ৰ ডক্তৰ

Dr. Meenakshi Pande Dr. Meenakshi Pande Ophthalmology
22 वर्षों का अनुभव
Dr. Upasna Dr. Upasna Ophthalmology
7 वर्षों का अनुभव
Dr. Akshay Bhatiwal Dr. Akshay Bhatiwal Ophthalmology
1 वर्षों का अनुभव
Dr. Surbhi Thakare Dr. Surbhi Thakare Ophthalmology
2 वर्षों का अनुभव
অনেক সময় অডিও র জন্য মুহূর্তের বিলম্ভ হতে পারে

চোখের সংক্রমণ (চোখের ইনফেকশন) জন্য ঔষধ

চোখের সংক্রমণ (চোখের ইনফেকশন) के लिए बहुत दवाइयां उपलब्ध हैं। नीचे यह सारी दवाइयां दी गयी हैं। लेकिन ध्यान रहे कि डॉक्टर से सलाह किये बिना आप कृपया कोई भी दवाई न लें। बिना डॉक्टर की सलाह से दवाई लेने से आपकी सेहत को गंभीर नुक्सान हो सकता है।